The Daily Ittefaq
ঢাকা, শনিবার, ১৮ জানুয়ারি ২০১৪, ০৫ মাঘ ১৪২০, ১৬ রবিউল আওয়াল ১৪৩৫
সর্বশেষ সংবাদ সামপ্রদায়িক সন্ত্রাস বন্ধে আইন করতে হবে: ইমরান এইচ সরকার | যুদ্ধাপরাধীদের বিচারপ্রক্রিয়া নিয়ে ভবিষ্যতে আর কোনো মন্তব্য করবে না পাকিস্তান | ফেব্রুয়ারিতে উপজেলা নির্বাচন: সিইসি | নাটোরে ইউপি চেয়ারম্যান খুন | সাতক্ষীরার যৌথ বাহিনীর সঙ্গে সংঘর্ষে নিহত ১

'শান্তি ও উন্নয়নে ভারত-বাংলাদেশ একযোগে কাজ করবে'

ইত্তেফাক রিপোর্ট

ভারতীয় হাইকমিশনার পঙ্কজ সরন আশা প্রকাশ করে বলেছেন, শান্তি ও ভবিষ্যত্ উন্নয়নের জন্য ভারত ও বাংলাদেশ একযোগে কাজ করে যাবে। এই দুটি দেশ গত ৪৩ বছরে কঠিন সময় পার করেছে। এখন আমরা এমন একটা সমাজ ও অর্থনৈতিক কাঠামো প্রতিষ্ঠার চেষ্টা করছি, যেখানে দারিদ্র্য বিমোচন, নিরক্ষরতা হরাস ও কর্মক্ষে ত্র সৃষ্টির চেষ্টা করা হচ্ছে। আজ শনিবার রাজধানীর ইন্দিরা গান্ধী সাংস্কৃতিক কেন্দ্রে ভারত সরকারের পক্ষ থেকে মুক্তিযোদ্ধার সন্তান ও উত্তরাধিকারদের শিক্ষা বৃত্তি প্রদান অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথির বক্তব্যে তিনি এসব কথা বলেন।

পঙ্কজ সরন বলেন, ভারত সব সময় বাংলাদেশের বিশ্বাসী অংশীদার ও বন্ধু। এই অংশীদারিত্ব সমতাভিত্তিক। আমরা একে অন্যের কাছ থেকে শিখতে এবং আরও ভালো বোঝাপড়ার জন্য মতবিনিময় করতে পারি। যা প্রমাণ করবে দক্ষিণ এশিয়ার মধ্যে দুটি স্বাধীন ও সার্বভৌম দেশ একসঙ্গে কিভাবে কাজ ও প্রতিবেশী অঞ্চল গড়ে তুলতে পারে। তিনি বলেন, বাংলাদেশ-ভারত সীমান্তে শান্তিপূর্ণ সম্পর্ক রয়েছে। এ সম্পর্ক আরও ভালো করতে ভারত সরকার প্রতিশ্রুতিবদ্ধ।

অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে মুক্তিযুদ্ধ বিষয়ক মন্ত্রী আকম মোজাম্মেল হক বলেন, জামায়াত যুদ্ধাপরাধী দল। পৃথিবীর অন্যান্য দেশের মতো ধর্মভিত্তিক দল থাকতে পারে। তবে বাংলাদেশে যুদ্ধাপরাধী দল নিষিদ্ধ হতেই হবে। বৃত্তি প্রদানের উদ্যোগকে সাধুবাদ জানিয়ে মন্ত্রী বলেন, ভারত বাংলাদেশের বন্ধু। ভবিষ্যতে যারা দেশ পরিচালনা করবে, তারা মুক্তিযুদ্ধের চেতনাকে ধারণ করে দেশকে এগিয়ে নিয়ে যাবে বলে তিনি আশা প্রকাশ করেন।

ভারতীয় হাইকমিশনার জানান, মুক্তিযোদ্ধাদের প্রতি শ্রদ্ধা রেখে তরুণ প্রজন্মকে আরও ভালো শিক্ষা ও নাগরিক হিসেবে গড়ে তোলার লক্ষ্যে তাঁদের সন্তানদের এই বৃত্তি দেওয়ার উদ্যোগ নেওয়া হয়েছে। ভবিষ্যতে পর্যাপ্ত শিক্ষিত ও দক্ষ জনশক্তি পেতে এবং বাংলাদেশের লক্ষ্য অর্জন ও চ্যালেঞ্জ মোকাবিলায় এটা সাহায্য করবে।

অনুষ্ঠানে ঢাকা বিভাগের ৩০ জন শিক্ষার্থীকে বৃত্তির চেক তুলে দেওয়া হয়। আয়োজকেরা জানান, ভারত সরকার এ বছর উচ্চমাধ্যমিক ও স্নাতক পর্যায়ে এক হাজার ৩৬৪ জন মুক্তিযোদ্ধার সন্তান, এমন শিক্ষার্থীদের বৃত্তি দিচ্ছে। এরমধ্যে উচ্চমাধ্যমিক পর্যায়ের শিক্ষার্থীরা প্রতিবছর ১০ হাজার টাকা এবং স্নাতক পর্যায়ের শিক্ষার্থীরা প্রতিবছর ২৪ হাজার টাকা করে পাবেন। মুক্তিযোদ্ধার সন্তানদের জন্য ভারত সরকার ২০০৬-০৭ সাল থেকে এই বৃত্তি প্রদান করে আসছে। এ পর্যন্ত উচ্চমাধ্যমিক পর্যায়ে চার হাজার ৪৬২ এবং স্নাতক পর্যায়ে দুই হাজার ৮০ জন শিক্ষার্থী বৃত্তি পেয়েছেন।

সর্বশেষ আরো খবর -
font
অনলাইন জরিপ
আজকের প্রশ্ন
ইইউ পার্লামেন্টে বাংলাদেশ বিষয়ে পাস হওয়া এক প্রস্তাবে বলা হয়েছে, 'যেসব রাজনৈতিক দল সন্ত্রাসী তত্পরতা চালাচ্ছে তাদের নিষিদ্ধ ঘোষণা করা উচিত।' আপনিও কি তাই মনে করেন?
9 + 4 =  
ফলাফল
আজকের নামাজের সময়সূচী
মে - ১৩
ফজর৩:৫৪
যোহর১১:৫৫
আসর৪:৩৩
মাগরিব৬:৩৫
এশা৭:৫৪
সূর্যোদয় - ৫:১৭সূর্যাস্ত - ০৬:৩০
archive
বছর : মাস :
The Daily Ittefaq
ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক: তাসমিমা হোসেন। উপদেষ্টা সম্পাদক হাবিবুর রহমান মিলন। ইত্তেফাক গ্রুপ অব পাবলিকেশন্স লিঃ-এর পক্ষে তারিন হোসেন কর্তৃক ৪০, কাওরান বাজার, ঢাকা-১২১৫ থেকে প্রকাশিত ও মুহিবুল আহসান কর্তৃক নিউ নেশন প্রিন্টিং প্রেস, কাজলারপাড়, ডেমরা রোড, ঢাকা-১২৩২ থেকে মুদ্রিত। কাওরান বাজার ফোন: পিএবিএক্স: ৭১২২৬৬০, ৮১৮৯৯৬০, বার্ত ফ্যাক্স: ৮১৮৯০১৭-৮, মফস্বল ফ্যাক্স : ৮১৮৯৩৮৪, বিজ্ঞাপন-ফোন: ৮১৮৯৯৭১, ৭১২২৬৬৪ ফ্যাক্স: ৮১৮৯৯৭২, e-mail: [email protected], সার্কুলেশন ফ্যাক্স: ৮১৮৯৯৭৩। www.ittefaq.com.bd, e-mail: [email protected]
Copyright The Daily Ittefaq © 2014 Developed By :