The Daily Ittefaq
ঢাকা, সোমবার, ৩১ ডিসেম্বর ২০১২, ১৭ পৌষ ১৪১৯, ১৭ সফর ১৪৩৪
সর্বশেষ সংবাদ রাজধানীতে বর্ষবরণে নাশকতা ঠেকাতে মাঠে নেমেছে ৮টি ভ্রাম্যমাণ আদালত | নতুন বছরে খালেদা জিয়ার শুভেচ্ছা | নতুন বছরে আন্দোলনে ভেসে যাবে সরকার: তরিকুল ইসলাম | দক্ষিণ এশিয়ায় সাংবাদিক হত্যার শীর্ষে পাকিস্তান | ঢাবি শিক্ষক সমিতির নির্বাচন নীল ৮, সাদা ৭ পদে জয়ী | জোর করে ক্ষমতায় থাকতে চাইলে ৭৫ এর মতো পরিণতি হবে: খন্দকার মোশাররফ | দুর্নীতিবাজদের ভোট দেবেন না : দুদক চেয়ারম্যান | ট্রেনের ধাক্কায় ৫ হাতির মৃত্যু | এখন বাবা-মাকে বই নিয়ে চিন্তা করতে হয় না : প্রধানমন্ত্রী | আপাতত পাকিস্তান সফর করছে না বাংলাদেশ ক্রিকেট দল | মিরপুরে ঢাবি অধ্যাপকের স্ত্রীকে গলাটিপে হত্যা | তাজরীনে আগুন পরিকল্পিত: বিজিএমইএ | ১৩ জানুয়ারি থেকে মালয়েশিয়ায় যাওয়ার নিবন্ধন | সমস্যা সমাধানে আলোচনার বিকল্প নেই : সৈয়দ আশরাফুল ইসলাম

ই লি য়া স আ লী

নিখোঁজ না গুম

সমীর কুমার দে

নয় বছরের ছোট্ট শিশু সাইয়ারা নাউয়াল। মাঝেমধ্যেই বাসার বেলকনিতে গিয়ে উদাস হয়ে দাঁড়িয়ে থাকে। চেয়ে থাকে পথের দিকে। কখন ফিরবে তার বাবা, কখন বাসায় এসে তাকে কোলে নিয়ে আদর করবে। তার এই প্রতীক্ষার যেন শেষ নেই। কেউই জানে না কখন ফিরবেন নাউয়ালের বাবা ইলিয়াস আলী। দেশের রাজনীতি, চাওয়া-পাওয়া, ভালো-মন্দ কিছুই বোঝে না এই শিশুটি। তার শুধু একটাই চাওয়া বাবাকে ফিরে পাওয়া। কিন্তু তাকে সান্ত্বনা দেওয়ার ভাষা কারও নেই। কেউ বলতেও পারছেন না ইলিয়াস আলী কবে ফিরবেন বা আদৌ ফিরবেন কি-না। সাবেক সংসদ সদস্য ও বিএনপির সাংগঠনিক সম্পাদক এম ইলিয়াস আলী গত ১৭ এপ্রিল থেকে নিখোঁজ রয়েছেন। তার স্ত্রী তাহসিনা রুশদীর লুনা এ প্রতিবেদকের সঙ্গে আলাপকালে শুধু বললেন, 'আল্লাহর উপর ছেড়ে দিয়েছি। আল্লাহই এর বিচার করবেন।' এখন আর কাউকে অভিযুক্ত করেন না লুনা। কারও কাছে কোনো দাবিও নেই। তারপরও অপেক্ষা যদি ফিরে আসেন ইলিয়াস আলী। শুধু এ কারণেই নিজের মোবাইল ফোনটি সব সময় হাতের কাছে রাখেন। কখনও মোবাইল ফোনটি বেজে উঠলে দ্রুত রিসিভ করার চেষ্টা করেন।

ইলিয়াস আলী ও তাহসিনা রুশদীর লুনার তিন ছেলে-মেয়ে। বড় ছেলে আবরার ইলিয়াস অর্ণব এইচএসসি পাস করেছে। আর ছোট ছেলে লাবিব সাহারা এবার এসএসসি পরীক্ষার্থী। একমাত্র মেয়ে সাইয়ারা নাউয়ালের বয়স ৯ বছর। ক্লাস থ্রিতে পড়ে। স্বামী নিখোঁজ হওয়ার পর থেকেই ছেলে-মেয়েদের ভবিষ্যত্ নিয়ে উদ্বিগ্ন হয়ে পড়েছেন লুনা। তিনি বলেন, বাবার জন্য ছেলে-মেয়েরা সব সময়ই কেমন যেন অন্যমনস্ক হয়ে যায়। লেখাপড়ায় খুব একটা মনোযোগ দিতে পারে না। এখন তাদের পরীক্ষার ফলে যে কী হবে—তা নিয়েই চিন্তা করেন তিনি।

শুধু ইলিয়াস আলী নয়, পুরো বছরজুড়েই আলোচনায় ছিল 'গুম'। হিউম্যান রাইটস ফোরাম আয়োজিত এক সাংবাদিক সম্মেলনে আইন ও সালিশ কেন্দ্রের তথ্য তুলে ধরে বলা হয়, বর্তমান সরকারের আমলে ২০০৯ সালের জানুয়ারি থেকে ২০১২ সালের সেপ্টেম্বর পর্যন্ত দেশে গুম হয়েছে ১৫৬ জন। এর মধ্যে ২৮ জনের মৃতদেহ পাওয়া গেছে। যারা 'গুম' হয়েছেন বা নিখোঁজ রয়েছেন, তাদের পরিবারের এখন একটাই চাওয়া, অন্তত লাশটা হলেও যেন তারা পায়। সন্তানদের স্বাভাবিক সুস্থভাবে বেড়ে উঠার জন্য বাবার সন্ধান তাদের সবচেয়ে বড় চাওয়া।

গত ১৭ এপ্রিল রাতে বিএনপি নেতা ইলিয়াস আলী ও তার গাড়িচালক আনসার আলী বনানীর সিলেট হাউস বাসা থেকে বের হয়ে নিখোঁজ হন। গভীর রাতে বনানী ২ নম্বর রোডে সাউথ পয়েন্ট স্কুলের সামনে থেকে পরিত্যক্ত অবস্থায় তার ব্যবহূত গাড়িটি উদ্ধার করে বনানী থানা পুলিশ। ইলিয়াস আলী নিখোঁজের ব্যাপারে আদালতে একটি রিট হয়। ইলিয়াস আলীর স্ত্রী তাহসিনা রুশদীর নুলা প্রধানমন্ত্রীর সঙ্গে সাক্ষাতের পর ইলিয়াস আলীকে খুঁজে বের করার ব্যাপারে আশ্বস্ত হয়েছিলেন। প্রধানমন্ত্রী, স্বরাষ্ট্রমন্ত্রীর আশ্বাস ও আদালতের নির্দেশের পরও ইলিয়াস আলীকে পরিবারের কাছে ফিরিয়ে দিতে পারেনি আইন প্রয়োগকারী সংস্থার সদস্যরা।

খোঁজ নিয়ে জানা গেছে, ইলিয়াস আলী 'গুম' রহস্যের তদন্তে এখন অনেকটাই চুপচাপ বসে আছে আইন-শৃঙ্খলা বাহিনী। তবে পুলিশের মহাপরিদর্শক হাসান মাহমুদ খন্দকার ইত্তেফাককে বলেন, আইন-শৃঙ্খলা বাহিনী হাত-পা গুটিয়ে বসে আছে, এমন অভিযোগ ঠিক নয়।' তিনি বলেন, 'প্রত্যেকটি অভিযোগেরই তদন্ত হচ্ছে। কোনোটা দ্রুত শেষ হয়, আবার কোনোটার তদন্তে একটু বেশি সময় লাগে। তিনি বলেন, 'পুলিশ ও র্যাবের নাম ব্যবহার করে কিছু অপহরণের ঘটনা ঘটেছে। তবে প্রাথমিক তদন্তে এসব ঘটনার কোনোটার সঙ্গেই আইন-শৃঙ্খলা বাহিনীর সম্পৃক্ততা পাওয়া যায়নি। এখন পুলিশ ও র্যাবসহ গোয়েন্দা সংস্থাগুলো অপহূত ব্যক্তিদের উদ্ধারের চেষ্টা করছেন। পাশাপাশি এসব ঘটনার সঙ্গে কারা জড়িত তাদের শনাক্ত করে গ্রেফতারের চেষ্টা চলছে।'

বিদায়ী বছরের ৪ এপ্রিল সন্ধ্যা ৭টায় আমিনুল ইসলাম নিজ শ্রমিক সংগঠন বাংলাদেশ গার্মেন্টস অ্যান্ড ইন্ডাস্ট্রিয়াল ওয়ার্কার্স ফেডারেশনের (বিসিডব্লিউএস) সাভার অফিসের কাছ থেকে অপহূত হন। পরদিন সকালে টাঙ্গাইল জেলার ঘাটাইল থানার পুলিশ সদস্যরা টাঙ্গাইলের ব্রাহ্মণশাসন মহিলা মহাবিদ্যালয়ের প্রধান গেটের সামনের রাস্তা থেকে আমিনুলের লাশ উদ্ধার করে। এ সময় আমিনুলের ডান হাঁটুর নিচে একটি কাপড় বাঁধা ছিল, যাতে জমাটবাঁধা রক্ত এবং তার দুই পায়ের আঙুল থেঁতলানো ছিল। বর্তমানে মামলাটির তদন্ত করছে টাঙ্গাইল জেলা পুলিশ ও গোয়েন্দা সংস্থা। কিন্তু বিভিন্ন জটিলতার কারণে এ মামলার কোনো ক্লু পাচ্ছেন না তারা।

নিহত আমিনুলের স্ত্রী হোসনে আরা বেগম ফাহিমা অভিযোগ করে বলেন, আমিনুল নিখোঁজ হওয়ার সময় তার বন্ধু মোস্তাফিজুরকে না পাওয়া যাওয়ায় তিনি ধারণা করছেন, মোস্তাফিজুরকে ব্যবহার করেই গোয়েন্দা সংস্থার সদস্যরা আমিনুলকে অপহরণের পর নির্যাতন চালিয়ে হত্যা করেছে। আর লাশ গুম করতে টাঙ্গাইলের ঘাটাইলে ফেলে দিয়েছে। শ্রমিকদের অধিকার নিয়ে কাজ করার কারণে ২০১০ সালেও বেশ কয়েকবার আমিনুলকে গ্রেফতার হতে হয়। তখনও তাকে নির্যাতন করা হয়েছিল। ফাহিমা বলেন, তার স্বামী শ্রমিক সংগঠন বিসিডব্লিউএসের নেতা ছিলেন। এ ছাড়াও আমিনুল বাংলাদেশ সেন্টার ফর ওয়ার্কার্স সলিডারিটিতে সংগঠক হিসেবে চাকরি করতেন। আশুলিয়ার মধ্যগাজীতে চটগ্রামের আবুল কালামের বাড়িতে বিসিডব্লিউএসের আঞ্চলিক অফিস থেকে বাসায় ফেরার পথেই তিনি নিখোঁজ হন। আর পরদিন তার লাশ পাওয়া যায়। বাংলাদেশ সফরে এসে যুক্তরাষ্ট্রের বিদায়ী পররাষ্ট্রমন্ত্রী হিলারি ক্লিনটনও আমিনুল হত্যার ঘটনায় উদ্বেগ প্রকাশ করেন।

গেল বছরের জানুয়ারিতে হিউম্যান রাইটস ওয়াচ এক প্রতিবেদনে বলেছে, দেশ-বিদেশে সমালোচনার মুখে বাংলাদেশে র্যাবের বিচারবহির্ভূত হত্যাকাণ্ড কমলেও গুমের ঘটনা অনেক বেড়েছে। বিচারবহির্ভূত হত্যা ও নিরাপত্তা হেফাজতে নির্যাতন তদন্ত ও বিচারে বাংলাদেশ সরকার উল্লেখযোগ্য পদক্ষেপ নেয়নি বলেও মনে করে নিউইয়র্কভিত্তিক মানবাধিকার সংস্থাটি। প্রতিবেদনে বলা হয়, ধরে নিয়ে গিয়ে গুম করার ঘটনা অনেক বেড়ে গেছে। নিরাপত্তা সংস্থাগুলো এক ধরনের নির্যাতনের বদলে অন্য ধরনের নির্যাতন চালাচ্ছে বলে এমন উদ্বেগ সৃষ্টি হয়েছে।

তবে ঘটনার পেছনের কার্যকারণ যাই হোক দীর্ঘ সময় পেরিয়ে গেলেও এখনো কোন পক্ষ থেকেই সুনিশ্চিতভাবে জানা যায়নি ইলিয়াস কি 'গুম' হয়েছেন না 'নিখোঁজ' রয়েছেন। এই রহস্যের শেষ কবে হবে তার সম্পর্কেও কোন ইঙ্গিত পাওয়া যায় না। পুরো বিষয় বিশ্লেষণে তাই বছর শেষে নিরাপত্তার শংকা আরও একবার শুধু আলোচিতই থেকে যায়।

font
অনলাইন জরিপ
আজকের প্রশ্ন
দলীয় সরকারের অধীনে নিরপেক্ষ নির্বাচন সম্ভব নয়। সাবেক উপদেষ্টা আকবর আলি খানের এই আশঙ্কা যথার্থ বলে মনে করেন?
6 + 6 =  
ফলাফল
আজকের নামাজের সময়সূচী
আগষ্ট - ২০
ফজর৪:১৬
যোহর১২:০২
আসর৪:৩৬
মাগরিব৬:৩১
এশা৭:৪৭
সূর্যোদয় - ৫:৩৬সূর্যাস্ত - ০৬:২৬
archive
বছর : মাস :
The Daily Ittefaq
ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক: তাসমিমা হোসেন। উপদেষ্টা সম্পাদক হাবিবুর রহমান মিলন। ইত্তেফাক গ্রুপ অব পাবলিকেশন্স লিঃ-এর পক্ষে তারিন হোসেন কর্তৃক ৪০, কাওরান বাজার, ঢাকা-১২১৫ থেকে প্রকাশিত ও মুহিবুল আহসান কর্তৃক নিউ নেশন প্রিন্টিং প্রেস, কাজলারপাড়, ডেমরা রোড, ঢাকা-১২৩২ থেকে মুদ্রিত। কাওরান বাজার ফোন: পিএবিএক্স: ৭১২২৬৬০, ৮১৮৯৯৬০, বার্ত ফ্যাক্স: ৮১৮৯০১৭-৮, মফস্বল ফ্যাক্স : ৮১৮৯৩৮৪, বিজ্ঞাপন-ফোন: ৮১৮৯৯৭১, ৭১২২৬৬৪ ফ্যাক্স: ৮১৮৯৯৭২, e-mail: [email protected], সার্কুলেশন ফ্যাক্স: ৮১৮৯৯৭৩। www.ittefaq.com.bd, e-mail: [email protected]
Copyright The Daily Ittefaq © 2014 Developed By :