The Daily Ittefaq
ঢাকা, সোমবার, ৩১ ডিসেম্বর ২০১২, ১৭ পৌষ ১৪১৯, ১৭ সফর ১৪৩৪
সর্বশেষ সংবাদ রাজধানীতে বর্ষবরণে নাশকতা ঠেকাতে মাঠে নেমেছে ৮টি ভ্রাম্যমাণ আদালত | নতুন বছরে খালেদা জিয়ার শুভেচ্ছা | নতুন বছরে আন্দোলনে ভেসে যাবে সরকার: তরিকুল ইসলাম | দক্ষিণ এশিয়ায় সাংবাদিক হত্যার শীর্ষে পাকিস্তান | ঢাবি শিক্ষক সমিতির নির্বাচন নীল ৮, সাদা ৭ পদে জয়ী | জোর করে ক্ষমতায় থাকতে চাইলে ৭৫ এর মতো পরিণতি হবে: খন্দকার মোশাররফ | দুর্নীতিবাজদের ভোট দেবেন না : দুদক চেয়ারম্যান | ট্রেনের ধাক্কায় ৫ হাতির মৃত্যু | এখন বাবা-মাকে বই নিয়ে চিন্তা করতে হয় না : প্রধানমন্ত্রী | আপাতত পাকিস্তান সফর করছে না বাংলাদেশ ক্রিকেট দল | মিরপুরে ঢাবি অধ্যাপকের স্ত্রীকে গলাটিপে হত্যা | তাজরীনে আগুন পরিকল্পিত: বিজিএমইএ | ১৩ জানুয়ারি থেকে মালয়েশিয়ায় যাওয়ার নিবন্ধন | সমস্যা সমাধানে আলোচনার বিকল্প নেই : সৈয়দ আশরাফুল ইসলাম

ফিরে দেখা :মাধ্যমিক শিক্ষাআলোচনায় ছিল কোচিং

বাণিজ্য বন্ধ নীতিমালা

নিজামুল হক

মাধ্যমিক শিক্ষা ব্যবস্থায় কোচিং বাণিজ্য বন্ধ নীতিমালা জারি ও বাস্তবায়ন এ বছর আলোচনার কেন্দ্রবিন্দুতে ছিল। শিক্ষকদের একটি অংশ কোচিং বাণিজ্য বন্ধে নীতিমালা জারি করায় ক্ষুব্ধ হয়েছেন। অন্যদিকে অভিভাবকরা হয়েছেন খুশি। অভিভাবকসহ সংশ্লিষ্ট ব্যক্তিরা মনে করছেন—সঠিকভাবে নীতিমালা বাস্তবায়িত হলে কোচিং বাণিজ্য অনেকাংশে নিয়ন্ত্রণে আসবে। এছাড়া শিক্ষার্থীদের কাছ থেকে আদায় করা অতিরিক্ত ফি ফেরত না দেয়ায় নামকরা তিন শিক্ষা প্রতিষ্ঠান প্রধানের এমপিও স্থগিত করায় যেমন আলোচিত হয়েছে, তেমনি শিক্ষকদের দাবির বিষয়টি গুরুত্ব না দেয়ায় শিক্ষা মন্ত্রণালয় সমালোচিত হয়েছে।

অন্যান্যবারের মতো এবারও বেসরকারি প্রতিষ্ঠানের শিক্ষকরা অবসর সুবিধা ও কল্যাণ ট্রাস্টের টাকা পাওয়ার জন্য দারে দারে ঘুরছেন। বিভিন্ন শিক্ষাবোর্ড, শিক্ষা মন্ত্রণালয়ের বিভিন্ন শাখার কর্মকর্তাদের ঘুষ বাণিজ্য চললেও অতীতের মতো এবারও মন্ত্রণালয় ব্যবস্থা নেয়নি। মন্ত্রণালয়ের উচ্চ পর্যায়ের কর্মকর্তারাও এবার অনিয়ম ও দুর্নীতিতে জড়িত ছিলেন। শিক্ষা মন্ত্রণালয়ের অধীনস্থ বিভিন্ন সরকারি মাধ্যমিক বিদ্যালয়ের সহকারী শিক্ষকদের পদ দ্বিতীয় শ্রেণীর গেজেটেড পদ মর্যাদায় উন্নীত করার সরকারি মাধ্যমিক বিদ্যালয়ের শিক্ষকদের জন্য ছিল একটি আলোচিত সুখবর। শিক্ষা আইনের খসড়া চূড়ান্ত হয়ে সেখানেই থেমে আছে। বরাবরের মতো চাকরি জাতীয়করণের দাবিতে এবারও শিক্ষক সংগঠনগুলো মাঠে ছিল।

কোচিং বাণিজ্য বন্ধ

চলতি বছর সরকার কোচিং বাণিজ্য বন্ধ নীতিমালা-২০১২ জারি করে। উচ্চ আদালতের রায়ের আলোকে কোচিং বাণিজ্য বন্ধে নীতিমালা জারি করে শিক্ষা মন্ত্রণালয়। সরকার কোচিং বাণিজ্য বন্ধ নীতিমালা বাস্তবায়নের যাত্রা শুরু করেছে রাজধানীর নামকরা শিক্ষা প্রতিষ্ঠান আইডিয়াল স্কুল অ্যান্ড কলেজের ১৬ শিক্ষককে শাস্তি দেয়ার মধ্য দিয়ে। সরকার দীর্ঘ সময় নিয়ে চলতি বছরের ২০ জুন কোচিং বাণিজ্য বন্ধে নীতিমালা জারি করে। এর আগে গত ১৪ জুন শিক্ষক, শিক্ষাবিদসহ সংশ্লিষ্ট ব্যক্তিদের নিয়ে শিক্ষামন্ত্রী নুরুল ইসলাম নাহিদ সভা করে নীতিমালা চূড়ান্ত করেন।

এই উদ্যোগ বছরের আলোচনার কেন্দ্রবিন্দুতে ছিল। সংশ্লিষ্টরা বলছেন, দেশে বছরের পর বছর কোচিং বাণিজ্য চলে আসছে। শিক্ষকদের একটি অংশ শিক্ষার্থীদের জিম্মি করে কোচিংয়ে বাধ্য করতো। এই নীতিমালা জারির পর শিক্ষকদের একটি অংশ সংবাদ সম্মেলনের মাধ্যমে এই নীতিমালা বাতিলের দাবি জানান। শিক্ষকদের এই অংশের বক্তব্য, শিক্ষা ব্যবস্থা জাতীয়করণ ছাড়া কোচিং বাণিজ্য বন্ধ নীতিমালা মেনে নেওয়া হবে না।

অতিরিক্ত ফি আদায়ে তিন শিক্ষা

প্রতিষ্ঠান প্রধানের এমপিও স্থগিত

অতীতের মতো চলতি বছরও রাজধানীর সেরা প্রতিষ্ঠানগুলো শিক্ষার্থী ভর্তিতে অতিরিক্ত টাকা আদায় করে। রাজধানীর ১৫টির অধিক প্রতিষ্ঠান তদন্ত করে প্রমাণ পায় শিক্ষা মন্ত্রণালয়। সেই প্রমাণের ভিত্তিতে সরকার সংশ্লিষ্ট প্রতিষ্ঠানগুলোকে টাকা ফেরত বা পরবর্তীতে সমন্বয়ের নির্দেশ দেয়। রাজধানীর নামকরা তিনটি প্রতিষ্ঠান মনিপুর উচ্চ বিদ্যালয়, ভিকারুন নিসা নূন স্কুল অ্যান্ড কলেজ এবং আইডিয়াল স্কুল অ্যান্ড কলেজ বাদে অন্য সবাই টাকা ফেরত এবং সমন্বয়ের সিদ্ধান্ত নেয়। শিক্ষা মন্ত্রণালয়ের নির্দেশ অমান্য করায় উল্লেখিত তিনটি শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের প্রধানদের গত ১২ ডিসেম্বর এমপিও স্থগিত করে মন্ত্রণালয়। দীর্ঘ সময় শেষে নামকরা তিনটি প্রতিষ্ঠান প্রধানের এমপিও স্থগিতের ঘটনা শিক্ষাঙ্গনে এখনও আলোচনায় রয়েছে।

font
অনলাইন জরিপ
আজকের প্রশ্ন
দলীয় সরকারের অধীনে নিরপেক্ষ নির্বাচন সম্ভব নয়। সাবেক উপদেষ্টা আকবর আলি খানের এই আশঙ্কা যথার্থ বলে মনে করেন?
8 + 1 =  
ফলাফল
আজকের নামাজের সময়সূচী
সেপ্টেম্বর - ২৯
ফজর৪:৩৫
যোহর১১:৫০
আসর৪:০৮
মাগরিব৫:৫১
এশা৭:০৪
সূর্যোদয় - ৫:৪৯সূর্যাস্ত - ০৫:৪৬
archive
বছর : মাস :
The Daily Ittefaq
ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক: তাসমিমা হোসেন। উপদেষ্টা সম্পাদক হাবিবুর রহমান মিলন। ইত্তেফাক গ্রুপ অব পাবলিকেশন্স লিঃ-এর পক্ষে তারিন হোসেন কর্তৃক ৪০, কাওরান বাজার, ঢাকা-১২১৫ থেকে প্রকাশিত ও মুহিবুল আহসান কর্তৃক নিউ নেশন প্রিন্টিং প্রেস, কাজলারপাড়, ডেমরা রোড, ঢাকা-১২৩২ থেকে মুদ্রিত। কাওরান বাজার ফোন: পিএবিএক্স: ৭১২২৬৬০, ৮১৮৯৯৬০, বার্ত ফ্যাক্স: ৮১৮৯০১৭-৮, মফস্বল ফ্যাক্স : ৮১৮৯৩৮৪, বিজ্ঞাপন-ফোন: ৮১৮৯৯৭১, ৭১২২৬৬৪ ফ্যাক্স: ৮১৮৯৯৭২, e-mail: [email protected], সার্কুলেশন ফ্যাক্স: ৮১৮৯৯৭৩। www.ittefaq.com.bd, e-mail: [email protected]
Copyright The Daily Ittefaq © 2014 Developed By :