The Daily Ittefaq
ঢাকা, মঙ্গলবার, ৩১ ডিসেম্বর ২০১৩, ১৭ পৌষ ১৪২০, ২৭ সফর ১৪৩৫
সর্বশেষ সংবাদ বিএনপির ভাইস চেয়ারম্যান এম মোরশেদ খানের বিরুদ্ধে দুদকের মামলা | ৩ জানুয়ারি জাতির উদ্দেশে ভাষণ দেবেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা

পিএসসিতেও দেশসেরা বরিশাল বিভাগ

বরিশাল অফিস জানায়, জেএসসি'র মতো প্রাথমিক শিক্ষা সমাপনী পরীক্ষার ফলাফলেও সারা দেশের মধ্যে প্রথম স্থান দখল করে নিয়েছে বরিশাল বিভাগ। গতকাল সোমবার প্রকাশিত সমাপনী পরীক্ষার ফলাফলে বরিশাল বিভাগে পাসের হার ৯৯.২৫ ভাগ। জিপিএ-৫ পেয়েছে ১১ হাজার ৭৫৯ জন। এর মধ্যে ছাত্র ৫ হাজার ১৩৩ জন এবং ছাত্রী ৬ হাজার ৬২৬ জন। এ বছর পরীক্ষায় অংশ নেয় ১ লাখ ৫৫ হাজার ৭৮৬ জন। যার মধ্যে ছাত্র ৬৯ হাজার ৭২৪ জন এবং ছাত্রী ৮৬ হাজার ০৬২ জন। বরিশাল বিভাগে প্রথম হয়েছে বরিশাল সরকারি বালিকা বিদ্যালয় (সদর গার্লস), ২য় স্থানে রয়েছে বরিশাল জিলা স্কুল এবং ৩য় হয়েছে ঝালকাঠী সরকারী হরচন্দ্র বালিকা বিদ্যালয়।

সেরা জেলা যশোর

যশোর অফিস জানায়, প্রাথমিক শিক্ষা সমাপনীতে পাসের হারের দিক দিয়ে এবার যশোর জেলা দেশসেরা হওয়ার কৃতিত্ব দেখিয়েছে। এবার এ জেলায় প্রাথমিক সমাপনী পরীক্ষায় শতভাগ শিক্ষার্থী উত্তীর্ণ হয়েছে। আর ইবতেদায়ীতে এ হার ৯৯ দশমিক ৫৬ শতাংশ। হরতাল-অবরোধের কারণে বারবার পরীক্ষা পেছানোর পরও শিক্ষার্থীরা ফলাফলে তাদের মেধার স্বাক্ষর রেখেছে। গতবছরের তুলনায় প্রাথমিক ও ইবতেদায়ী উভয় পরীক্ষায় পাসের হার বেড়েছ। তবে প্রাথমিকে কমেছে জিপিএ-৫ প্রাপ্তির সংখ্যা। গত বছর জিপিএ-৫ পেয়েছিল ৮ হাজার ২৯১ জন। এ বছর এ সংখ্যা ৬ হাজার ৫৫৮ জন। গতবছর এ জেলার অবস্থান ছিল ২য়। এবছর জেলায় প্রাথমিক সমাপনী পরীক্ষায় ৪৫ হাজার ৬৭১ জন শিক্ষার্থী অংশগ্রহণ করে সবাই পাস করেছে। এদের মধ্যে জিপিএ-৫ পেয়েছে ৬ হাজার ৫৫৮ জন। আর ইবতেদায়ী সমাপনীতে ৫ হাজার ৮৮৭ জন পরীক্ষার্থীর মধ্যে পাস করেছে ৫ হাজার ৮৬১ জন। এদের মধ্যে জিপিএ-৫ পেয়েছে ১৭৬ জন। অপরদিকে জেলায় ইবতেদায়ী সমাপনীতে ৫ হাজার ৮৮৭ জন পরীক্ষার্থীর মধ্যে পাস করেছে ৫ হাজার ৮৬২ জন। এদের মধ্যে জিপিএ-৫ পেয়েছে ১৭৬ জন শিক্ষার্থী। এবছর পাসের হার ৯৯ দশমিক ৫৬ শতাংশ।

মুন্সীগঞ্জে পাসের হার ৯৯.৯৯

মুন্সীগঞ্জ প্রতিনিধি জানান, এবারের পিএসসি পরীক্ষায় মুন্সীগঞ্জ জেলায় পাসের হার ৯৯.৯৯। জিপিএ-৫ পেয়েছে ৪ হাজার ৪৮২ শিক্ষার্থী। জেলায় এবছর ২৬ হাজার ৬৭২ জন পরীক্ষা দিয়ে উত্তীর্ণ হয়েছে ২৬ হাজার ৬৭০ জন। মুন্সীগঞ্জে শীর্ষস্থান দখল করেছে প্রেসিডেন্ট প্রফেসর ড. ইয়াজউদ্দিন আহম্মেদ রেসিডেন্সিয়াল মডেল স্কুল এন্ড কলেজ। দ্বিতীয় স্থানে আছে শহরের এভিজেএম সরকারি বালিকা উচ্চ বিদ্যালয়। তৃতীয় স্থানের অধিকারী টঙ্গীবাড়ি উপজেলার সোনারং বহুমুখী পাইলট উচ্চ বিদ্যালয়। চতুর্থ হয়েছে একই উপজেলা টঙ্গীবাড়ি পাইলট বালিকা বিদ্যালয় এবং ৫ম সিরাজদিখান উপজেলার খাসমহল বালুরচর উচ্চ বিদ্যালয়।

রাজশাহীতে পাসের হার

প্রায় শতভাগ

রাজশাহী অফিস জানায়, এবারের প্রাথমিক শিক্ষা সমাপনী (পিএসসি) পরীক্ষায় রাজশাহী বিভাগের পাসের হার ৯৮.৫৪ শতাংশ। জিপিএ-৫ পেয়েছে ২৬ হাজার ৬৬৩ জন শিক্ষার্থী। এর মধ্যে বালক ১২ হাজার ৯৪৩ এবং বালিকা ১৩ হাজার ৭২০ জন। এদিকে রাজশাহী জেলায় পাসের হার শতকরা ৯৯ দশমিক ৫৭ ভাগ। জিপিএ-৫ পেয়েছে ৩ হাজার ৯২০ শিক্ষার্থী। রাজশাহী জেলা প্রাথমিক শিক্ষা অফিসার নফীসা বেগম জানান, পিএসসি পরীক্ষায় জেলার বোয়ালিয়া থানাসহ (মহানগরী) ৯ উপজেলায় ৪৩ হাজার ৭১১ জন পরীক্ষায় অংশ নেয়। এদের মধ্যে ৪২ হাজার ৪৮৫ জন পাস করেছে। রাজশাহীর বোয়ালিয়া থানায় (মহানগরী) পিএসসি পরীক্ষায় এবার পাসের হার ৯৯.০৬। জেলায় পাসের হারে এবারো শীর্ষে রয়েছে দুর্গাপুর উপজেলা। এ উপজেলায় এবার পাসের হার ৯৯ দশমিক ৮৪ ভাগ। অপরদিকে, ইবতেদায়ী সমাপনী পরীক্ষায় রাজশাহী জেলায় পাস করেছে ৯৩ দশমিক ৮৭ ভাগ শিক্ষার্থী।

খুলনায় পরীক্ষার্থী বাড়লেও

কমেছে জিপিএ-৫

খুলনা অফিস জানায়, প্রাথমিক শিক্ষা সমাপনী পরীক্ষায় খুলনায় এক বছরে শিক্ষার্থী বেড়েছে প্রায় তিন হাজার। সেই তুলনায় কমে গেছে জিপিএ-৫। চলতি বছর খুলনা থেকে জিপিএ-৫ পেয়েছে ৩ হাজার ৭৪৪ জন এবং পাসের হার ৯৯ দশমিক ০৭ শতাংশ। গত বছর পাসের হার ছিল ৯৯ দশমিক ৭৮ শতাংশ এবং জিপিএ-৫ পেয়েছিল ৫ হাজার ৩৯৭ জন।

খুলনা জেলা প্রাথমিক শিক্ষা অফিসার অশোক কুমার সমাদ্দার জানান, খুলনা মহানগরী ও জেলায় এ বছর ৩৯ হাজার ১৫৫ জন ছাত্র-ছাত্রী পরীক্ষায় অংশ নেয়। এরমধ্যে পাস করেছে ৩৬ হাজার ১৯৭ জন। জিপিএ-৫ পেয়েছে ৩ হাজার ৭৪৪ জন। এ বছর খুলনায় ইবতেদায়ী শিক্ষা সমাপনী পরীক্ষায় তিন হাজার ৭৪৪ জন পরীক্ষার্থীর মধ্যে পাস করেছে তিন হাজার ৫৬০ জন। পাসের হার ৯৫ দশমিক ০৯ শতাংশ। জিপিএ-৫ পেয়েছে ১১৯ জন। গত বছরের তুলনায় এ বছর ইবতেদায়ীতেও পাসের হার কমেছে, তবে বেড়েছে জিপিএ-৫ এর সংখ্যা। এবারের প্রাথমিক সমাপনী পরীক্ষায় ফুলতলা উপজেলা খুলনা জেলায় শীর্ষে রয়েছে। উপজেলা প্রাথমিক শিক্ষা অফিস সূত্র জানায়, ফুলতলা উপজেলায় পিএসসি পরীক্ষায় ২ হাজার ৩৯৩ শিক্ষার্থীর মধ্যে ২ হাজার ৩৬৪ শিক্ষার্থী কৃতকার্য হয়। জিপিএ ৫ পেয়েছে ৩৪১ শিক্ষার্থী। উপজেলায় এবতেদায়ী পরীক্ষায় ৩১২ শিক্ষার্থীর মধ্যে ২৭৭ শিক্ষার্থী কৃতকার্য হয়। জিপিএ ৫ পেয়েছে ১১ জন।

দশম চট্টগ্রামের বিএন স্কুল

এন্ড কলেজ

সারা দেশে প্রাথমিক সমাপনী পরীক্ষায় চট্টগ্রামের বিএন স্কুল এন্ড কলেজ ১০ম স্থান অর্জন করেছে। বিএন স্কুল এন্ড কলেজের ৫৮৩ জন পরীক্ষার্থীর মধ্যে জিপিএ-৫ পেয়েছে ৪১৩ জন। পাসের হার শতভাগ। এ ভাল ফলাফলের ব্যাপারে বিএন স্কুল এন্ড কলেজের অধ্যক্ষ জানান, শিক্ষার্থী-শিক্ষকদের কঠোর পরিশ্রম, অভিভাবকদের ও প্রশাসনিক সার্বিক সহযোগিতায় এ ভাল ফলাফল অর্জন সম্ভব হয়েছে।

সিলেটের ফল গতবারের চেয়ে ভাল

সিলেট অফিস জানায়, সিলেট জেলায় এবারের প্রাথমিক শিক্ষা সমাপনী পরীক্ষায় (পিএসসি) পাসের হার ৯৫ দশমিক ৭৭ শতাংশ। গতবারের ফলাফলের চেয়ে এবার সব সূচকই বৃদ্ধি পেয়েছে। বেড়েছে জিপিএ ৫ প্রাপ্তির সংখ্যাও। জেলায় ছেলেদের পাসের হার ৯৫ দশমিক ৭৫ শতাংশ এবং মেয়েদের পাসের হার ৯৫ দশমিক ৭৯ শতাংশ। জেলার ১২ উপজেলায় মোট ৬৩ হাজার ৮৩২ শিক্ষার্থী পরীক্ষায় অংশ নিয়ে পাস করেছে ৬১ হাজার ১৩৪ জন। জিপিএ ৫ পেয়েছে ২ হাজার ৬৭১ শিক্ষার্থী। সবচেয়ে বেশি জিপি ৫ পেয়েছে সিলেট সদর উপজেলায়। এখানে এক হাজার ৪৪৯ জন শিক্ষার্থী জিপিএ-৫ পেয়েছে। আর সবচেয়ে কম জিপিএ ৫ পেয়েছে কোম্পানীগঞ্জ উপজেলায়। এখানে জিপিএ পেয়েছে ৩১ শিক্ষার্থী।

কুমিল্লায় জিপিএ-৫ পেয়েছে

মেয়েরা বেশী

কুমিল্লা প্রতিনিধি জানান, প্রাইমারী স্কুল সার্টিফিকেট (পিএসসি) পরীক্ষার ফলাফলে জিপিএ-৫ পেয়েছে ৯ হাজার ১৭৮ শিক্ষার্থী। এ জেলায় ৪ হাজার ১৮৫ জন বালক ও ৪ হাজার ৯৯৩ জন বালিকা জিপিএ-৫ পেয়েছে। এ বছর কুমিল্লার ১৬টি উপজেলার ৪ হাজার ৩০৪টি বিদ্যালয় থেকে ১ লাখ ১০ হাজার ৪১৯ জন শিক্ষার্থী পরীক্ষায় অংশগ্রহণ করে। এরমধ্যে বালক ৪৮ হাজার ৩৩০ ও বালিকা ৬২ হাজার ৮৯ জন। এ জেলায় গড় পাসের হার ৯৯ দশমিক ১৫ শতাংশ।

ইবতেদায়ী শিক্ষা সমাপনী পরীক্ষা

এবার ইবতেদায়ী শিক্ষা সমাপনী পরীক্ষার ফলাফলে জেলার ১৬ উপজেলা থেকে ১৬ হাজার ৩৯২ জন শিক্ষার্থী পরীক্ষায় অংশগ্রহণ করে। এদের মধ্যে ৩৮৮ জন জিপিএ-৫ পেয়েছে, তন্মধ্যে ২৩৫ জন বালক ও ১৫৩ জন বালিকা। এ জেলায় গড় পাসের হার ৯৭ দশমিক ৬০ শতাংশ।

সারাদেশে সপ্তম কুমিল্লা মডার্ণ স্কুল

পিএসসিতে এবার দেশ সেরা প্রতিষ্ঠানের তালিকায় সপ্তম হয়েছে কুমিল্লা মডার্ণ স্কুল। এই স্কুলের ৮৩৯ জন শিক্ষার্থী পরীক্ষায় অংশগ্রহণ করে সকলেই উত্তীর্ণ হয়েছে। জিপিএ-৫ পেয়েছে ৫২০ জন। অধ্যক্ষ বলেন, শিক্ষক-শিক্ষার্থী-অভিভাবকদের সম্মিলিত প্রচেষ্টায় এ ফলাফল অর্জন সম্ভব হয়েছে। আগামীতে আরো ভালো করার প্রত্যয় ব্যক্ত করেন তিনি।

ময়মনসিংহে ৫৬২৮টি জিপিএ-৫

ময়মনসিংহ প্রতিনিধি জানান, জেলার ১২টি উপজেলায় প্রাথমিক শিক্ষা সমাপনী পরীক্ষায় ৫৬২৮ জন জিপিএ-৫ পেয়েছে। পাসের হার ৯৭.৪৬। পরীক্ষায় ৯ হাজার ৭শত ১৯৬ জন পরীক্ষার্থী অংশগ্রহণ করে। জেলার ১২টি উপজেলায় এবতেদায়ী শিক্ষা সমাপনী পরীক্ষায় ৭৩ জন জিপিএ-৫ পেয়েছে। পাসের হার ৯২.৭৯। এবতেদায়ী শিক্ষা সমাপনী পরীক্ষায় ১২ হাজার ২১৬ জন পরীক্ষার্থী অংশগ্রহণ করে।

নেত্রকোনায় পাসের হার ৯৮.২৩

নেত্রকোনা প্রতিনিধি জানান, নেত্রকোনার কেন্দুয়ায় এ বছর প্রাথমিক শিক্ষা সমাপনী পরীক্ষায় মোট ১৮৯ জন জিপিএ- ৫ অর্জন করেছে। গড় পাসের হার ৯৮.২৩ শতাংশ। উপজেলা ভারপ্রাপ্ত প্রাথমিক শিক্ষা কর্মকর্তা খলিলুর রহমান জানান, এ বছর পরীক্ষায় অংশগ্রহণ করে ৫৪৮৩ জন। এদের মধ্যে প্রকাশিত ফলাফলে উত্তীর্ণ হয়েছে ৫৩৮৬ জন ও অকৃতকার্য হয়েছে ৯৭ জন শিক্ষার্থী। জিপিএ ৫ অর্জন করেছে ১৮৯ জন শিক্ষার্থী।

ফরিদপুরে জিপিএ-৫ ২৫০৯টি

ফরিদপুর প্রতিনিধি জানান, প্রাইমারী স্কুল সার্টিফিকেট পরীক্ষায় ফরিদপুর জেলায় জিপিএ ৫ অর্জন করেছে ২ হাজার ৫০৯ জন ক্ষুদে শিক্ষার্থী। এর মধ্যে প্রাথমিকে ২ হাজার ৪৪৫ জন আর এবতেদায়ীতে ৬৪ জন। জেলা প্রাথমিক শিক্ষা অফিস সূত্র জানিয়েছে, জেলায় প্রাথমিকে পাসের হার বালক ৯৮.৭০ শতাংশ ও বালিকা ৯৮.১৭ শতাংশ এবং এবতেদায়ীতে বালক ৮৫.৪৪ শতাংশ ও বালিকা ৯৫.৯১ শতাংশ। পরীক্ষায় অংশগ্রহণ করে ৩৯ হাজার ৮৯২ জন।

font
অনলাইন জরিপ
আজকের প্রশ্ন
প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বলেছেন, 'বিরোধীদল সরকারের বিরুদ্ধে নয়, জনগণের বিরুদ্ধে আন্দোলন করছে।' আপনিও কি তাই মনে করেন?
2 + 1 =  
ফলাফল
আজকের নামাজের সময়সূচী
মে - ২৬
ফজর৩:৪৭
যোহর১১:৫৬
আসর৪:৩৫
মাগরিব৬:৪১
এশা৮:০৪
সূর্যোদয় - ৫:১৩সূর্যাস্ত - ০৬:৩৬
archive
বছর : মাস :
The Daily Ittefaq
ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক: তাসমিমা হোসেন। উপদেষ্টা সম্পাদক হাবিবুর রহমান মিলন। ইত্তেফাক গ্রুপ অব পাবলিকেশন্স লিঃ-এর পক্ষে তারিন হোসেন কর্তৃক ৪০, কাওরান বাজার, ঢাকা-১২১৫ থেকে প্রকাশিত ও মুহিবুল আহসান কর্তৃক নিউ নেশন প্রিন্টিং প্রেস, কাজলারপাড়, ডেমরা রোড, ঢাকা-১২৩২ থেকে মুদ্রিত। কাওরান বাজার ফোন: পিএবিএক্স: ৭১২২৬৬০, ৮১৮৯৯৬০, বার্ত ফ্যাক্স: ৮১৮৯০১৭-৮, মফস্বল ফ্যাক্স : ৮১৮৯৩৮৪, বিজ্ঞাপন-ফোন: ৮১৮৯৯৭১, ৭১২২৬৬৪ ফ্যাক্স: ৮১৮৯৯৭২, e-mail: [email protected], সার্কুলেশন ফ্যাক্স: ৮১৮৯৯৭৩। www.ittefaq.com.bd, e-mail: [email protected]
Copyright The Daily Ittefaq © 2014 Developed By :